Sunday, 22 September 2019

How to Improve Your Motivational Skill, Series 38 (Prerana)


প্রেরণা সিরিজ - ৩৮ ,  PRERANA SERIES - 38    (Motivational & Inspirational)
লেখক – প্রদীপ কুমার রায়।
                                                  আগেই বলে নিচ্ছি কেননা তোমরা পরে ভুলে যাবে বাকি অন্যান্যদের  সাহায্যের উদ্দেশ্যে শেয়ারটা মনে করে, করে দেবে। শুরু করছি আজকের বিষয় 
                                         নমস্কার বন্ধুরা আমি প্রদীপ  তোমাদের সবাইকে আমার এই Pkrnet Blog   স্বাগতম।আশা করি সবাই তোমরা  ভালোই  আছো  আর  সুস্থ আছো


Click Here to Visit My Website
                                       বুদ্ধি প্রতিটি প্রাণীর মধ্যেই আছে। তার মাত্রা বিশেষ থাকে। প্রত্যেকে তাদের বিভিন্ন কাজের মধ্য দিয়ে বুদ্ধির পরিচয় দেওয়ার চেষ্টা করে। বুদ্ধি কম আছে না বেশি আছে , আছে কিন্তু কাজে লাগাতে পারছে না, নাকি একেবারেই নেই-- এই বিচারটা সবসময় ঠিক হয় না।

                            বেশিরভাগ ক্ষেত্রে অভিবাবকেরা ছেলে -মেয়েদের একাডেমিক রেজাল্ট দেখেই তাদের বুদ্ধিমত্তার বিচার করেন। কিন্তু মনোবিজ্ঞানীরা বলেন শুধু লেখাপড়া নয় , অন্যন্য আচরণ , দক্ষতা, সিদ্ধান্ত ,সৃষ্টি এবং জীবনের প্রতি ইতিবাচক দৃষ্টিভঙ্গিতেও বুদ্ধির প্রতিফলন হয়।

                         নিজেকে সৎ মানুষ হিসাবে তৈরী করতে পারলে তুমি এটা নিশ্চিত হতে পারবে যে সংসারে অন্তত একটা দুর্বৃত্ত কম আছে। আন্তরিকতা  ইচ্ছার ব্যাপার এবং এটা প্রমান করা মুশকিল ।  অপরকে সাহায্য করার আন্তরিক ইচ্ছা থাকলে , তোমরা তোমাদের লক্ষ্যে পৌঁছাতে পারবে।

                           স্বামী বিবেকানন্দ জ্ঞানযোগে বলেছেন," আজকাল কর্ম বিষয়ে বেশি কথা বলা এবং চিন্তাকে উড়াইয়া দেওয়ার খুব ঝোঁক। কর্ম খুব ভালো বটে , কিন্তু তাহাও চিন্তা হইতে প্রসূত। শরীরের ভিতর দিয়া ব্যক্ত শক্তির ক্ষুদ্র প্রকাশকেই কর্ম বলে। চিন্তা ব্যতীত কোনো কার্য হইতে পারে না। মস্তিষ্ককে উচ্চ উচ্চ চিন্তায় --উচ্চ উচ্চ আদর্শে পূর্ণ কর, দিবারাত্র মনের সম্মুখে ঐগুলি স্থাপন কর, তাহা হইলেই বড় বড় কার্য হইবে"।
শরৎ রচনা সমগ্র -৩


প্রতিযোগিতায় সফল হতে চাইলে দরকার দক্ষতা। সাফল্য পেতে হলে নিচে বর্ণিত কথাগুলি স্মরণে রাখতে হবে।

  • একটি খারাপ সময়েও নিজেকে শান্ত রাখতে হবে।
  • নিজের প্রতি বিশ্বাস রাখতে হবে এবং যে কোনো পরিস্থিতি মোকাবিলা করার জন্য প্রস্তুত থাকতে হবে।
  • অপরকে পরিবর্তিত করার দক্ষতাকে যেন অতিমাত্রায় বিশ্বাস করবে না।
  • অন্য লোকের যুক্তি ও দৃষ্টিভাঙি থেকে শিক্ষা নিতে হবে।
  • অন্যের তৈরী কোনো সৃষ্টিকে ধ্বংস করতে নাই, তার কারন কখনো ওই সৃষ্টি তোমার কাজে লাগতে পারে।
  • তাৎক্ষণিক পরাজয়ের সাথে বিনম্রভাবে না বলতে শিখতে হবে।
  • নিজের সাফল্যকে মাপতে হয় সুস্বাস্থ্য ,শান্তি  এবং ভালোবাসা উপভোগের মধ্য দিয়ে।
  • নিজের সম্পর্কে এবং নিজের কাজের সম্পর্কে সবসময় সুচিন্তা করতে এবং বলতে শিখতে হবে।
  • প্রত্যেকের প্রতি সৌজন্যবোধ থাকা জরুরি,কারন ইটা করতে কিছুই খরচ হয় না।
  • সব সময় মনে রাখতে হবে যে জয়ীরা  যা করে, পরাজিতরা তা করে না এবং সেটাই তাদের পার্থক্য গড়ে তোলে।
  • বুদ্ধিমান লোকের শ্রদ্ধা আর শিশুদের স্নেহ পেতে আগ্রহী হতে হবে।
  • সৎ সমালোচকের প্রশংসা এবং অন্যের ভালো দিক খুঁজে নিতে হবে।

জীবনে অনুপ্রেরণার গুরুত্ব যে কতটা, তা আমরা কমবেশি  প্রত্যেকেই জানি| প্রত্যেক মানুষই চায়  তারা যেন সর্বদা অনুপ্রাণিত থাকেন |
এই অনুপ্রেরণা মূলক বিচার গুলিকে বাস্তব জীবনে ঠিক  মত মেনে চললে যে কোনো মানুষের জীবন অনয়াসেই বদলে যেতে পারে 
মোটিভেশনাল ভিডিও দেখতে উপরের ডানদিকের কর্নারে YouTube লিঙ্ক অথবা এখানে Pkrnet এই লিঙ্কটির উপর ক্লিক করুন।
এতক্ষণ সময় দিয়ে পড়ার জন্যে তোমাকে  অসংখ্য ধন্যবাদ জানাই  পিকেআর নেট  ব্লগ - এর পক্ষ থেকে | 
পোস্টটা ভালো লেগে থাকলে অবশ্যই একটু Comment করে তোমার মতামত আমায় জানিও |তোমার মূল্যবান মতামত আমাকে বাড়তি অনুপ্রেরণা যোগাতে ভীষনভাবে সাহায্য করে।







No comments:

Post a comment